বইমেলায় সাড়া ফেলেছে মিজান মালিকের কাব্যগ্রন্থ ‘গল্প ছাড়া মলাট’

89
বইমেলায় সাড়া ফেলেছে মিজান মালিকের কাব্যগ্রন্থ ‘গল্প ছাড়া মলাট’

বইমেলায় পাওয়া যাচ্ছে মিজান মালিকের কাব্যগ্রন্থ ‘গল্প ছাড়া মলাট’

এবারের একুশে বইমেলায় ব্যাপক সাড়া ফেলেছে অনুসন্ধানী সাংবাদিক মিজান মালিকের প্রথম কাব্যগ্রন্থ ‘গল্প ছাড়া মলাট’। মেলায় কবিতার বই বিক্রির দিক থেকে ‘গল্প ছাড়া মলাট’ শীর্ষস্থানে রয়েছে বলে জানা গেছে।

এ বিষয়ে বইটির প্রকাশনী সংস্থা ঐতিহ্য এর আরিফুর রহমান নাঈম বলেন, ‘মিজান মালিকের প্রথম কাব্যগ্রন্থ গল্প ছাড়া মলাটের পান্ডুলিপি পড়েই সিদ্ধান্ত নেই তার কবিতার বই প্রকাশ করব। কারণ তার লেখায় নতুন কিছু পেয়েছি। প্রতিটি কবিতায় একটি গল্প পাবেন পাঠকেরা। বইটির বিক্রি ভালো হচ্ছে। পাঠকের ভালো সাড়া পাচ্ছি।’

গল্প ছাড়া মলাট কাব্যগ্রন্থ প্রসঙ্গে তারুণ্যের কবি রেজাউদ্দিন স্টালিন বলেন, ‘প্রেম আর বিপ্লব সমার্থক। বাংলা কবিতায় রোমান্টিক দ্রোহবাদের ধারাটি প্রবল। এই ধারায় নজরুলই সর্বোত্তম উদাহরণ।মোর এক হাতে বাঁকা বাঁশের বাশরী, আরেক হাতে রণতূর্য। কবির হাতে ও হৃদয়ে রণতূর্য থাকে। সেই তূর্যবাদকের একজন মিজান মালিক। সুকান্ত ভট্টাচার্য, দিনেশ দাস, সুভাষ মুখোপাধ্যায় প্রমুখ কবিতাকে নিতে চেয়েছিলেন মানুষের মুখের কাছে, বুকের কাছে। কবি মিজান মালিকও মানুষের হৃদয়ের কথাটি বলতে চান। তিনিও কবিতা এবং সত্য উচ্চারণে পারঙ্গম।’

দেশের খ্যাতিমান কবি মুহম্মদ নূরুল হুদা কবি মিজান মালিকের কবিতার ভূয়সী প্রশংসা করেন।

তিনি বলেন, ‘মিজান মালিকের কবিতার পান্ডুলিপি আমি তিরিশ মিনিটে পড়েছি। নতুন কিছুর সন্ধান পেয়েছি তার কবিতায়।’

নিজের প্রথম কাব্যগ্রন্থ বিষয়ে কবি মিজান মালিক বলেন, ‘জীবনের মলাট তো দিনে দিনে গল্পহীন হয়ে যাচ্ছে। মলাট আছে গল্প নেই। এ এক ভীষণ অনুরাগ। যদি একটুও পূর্ণতা পায় গল্প ছাড়া মলাট। ওইটুকু শান্ত্বনা পূঁজি করে নতুন কিছু শেখার প্রেরণাকে জাগিয়ে রাখব।’

গল্প ছাড়া মলাটে ৮০ টি কবিতা রয়েছে। বইযটির গায়ের মূল্য ১৭০ টাকা। তবে ২৫ পার্সেন্ট ছাড়ে ১২৫ টাকায় এটি পাওয়া যাচ্ছে মেলায় সোহরাওয়ার্দী উদ্যান অংশে ঐতিহ্য স্টলে। প্যাভেলিয়ন -১৪। সূত্রঃ যুগান্তর

Facebook Comments